দেশপ্রেম নিয়ে বঙ্গবন্ধুর উক্তি

দেশপ্রেম নিয়ে বঙ্গবন্ধুর উক্তি, বাণী, স্ট্যাটাস এবং কবিতা

দেশপ্রেম নিয়ে বঙ্গবন্ধুর উক্তি এখানে শেয়ার করেছি। আমরা যেমন আমাদের দেশকে ভালবাসি, ঠিক তেমনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশ এবং দেশের মানুষকে ভালবাসতেন। মা ও মাতৃ ভূমি যেমন সকলের কাছে প্রিয়, ঠিক তেমনি এই দেশ আমাদের সকলের কাছেই প্রিয়। বঙ্গ বন্ধু দেশকে  ভালবাসতেন এবং আমাদের কে দেশকে ভালবাসতে শিখিয়েছেন। দেশকে আঁকড়ে ধরে বেচে থাকার পথ দেখিয়েছেন। 

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বলেছেন, “সাত কোটি বাঙ্গালির ভালোবাসার কাঙ্গাল আমি। আমি সব হারাতে পারি, কিন্তু বাংলাদেশের মানুষের ভালোবাসা হারাতে পারব না”। তার মধ্যে দেশপ্রেম এবং মানুষের ভালোবাসাই বেচে থাকার এক অমরত্বও। তিনি আরও বলেছেন, ” আমি যদি বাংলার মানুষের মুখে হাসি ফোটাতে না পারি, আমি যদি দেখি বাংলার মানুষ দুঃখী, আর যদি দেখি বাংলার মানুষ পেট ভরে খায় নাই, তাহলে আমি শান্তিতে মরতে পারব না।” এই রকম আরও কিছু ভালো ভালো উক্তি , বাণী। স্ট্যাটাস ও সুন্দর সুন্দর কবিতা নিচে দেওয়া আছে দেখেনিন। 

দেশপ্রেম নিয়ে বঙ্গবন্ধুর উক্তি

তিনি হচ্ছেন সেই মানুষ যিনি আমাদের কে দেশ কে ভালবাসতে শিখিয়েছেন। দেশকে শত্রুর হাত থেকে রক্ষা করার পথ দেখিয়েছে। তিনি আজ আমাদের মাজে নেই। কিন্তু তার দেওয়া উপহার হিসেবে কিছু উক্তি রয়েছে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশ প্রেম নিয়ে অনেক উক্তি লিখেছেন। সেই উক্তি গুলো পড়লে দেশপ্রেম নিয়ে অনুপ্রেরণা পাওয়া যায়, দেশকে ভালবাসতে শিখা যায়। নিচে বঙ্গ-বন্ধু লেখা উক্তি থেকে শ্রেষ্ঠ কিছু উক্তি এখানে উপস্থাপন করেছি। 

মানুষকে ভালোবাসলে মানুষও ভালোবাসে। যদি সামান্য ত্যাগ স্বীকার করেন, তবে জনসাধারণ আপনার জন্য জীবন দিতেও পারে।
-বঙ্গবন্ধু 

ভয় নাই, কোনো ভয় নাই। আমি আছি। দুর্নীতিবাজদের খতম করো, বাংলাদেশের দুঃখী মানুষের দুঃখ মোচন করো।
– বঙ্গবন্ধু  

এবারের সংগ্রাম স্বাধীনতার সংগ্রাম, এবারের সংগ্রাম আমাদের মুক্তির সংগ্রাম
– বঙ্গবন্ধু 

যিনি যেখানে রয়েছেন, তিনি সেখানে আপন কর্তব্য পালন করলে দেশের মধ্যে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হতে পারে না। 
-বঙ্গবন্ধু 

বাঙ্গালি জাতীয়তাবাদ না থাকলে আমাদের স্বাধীনতার অস্তিত্ব বিপন্ন হবে।
-বঙ্গবন্ধু 

যদি কেউ ন্যায্য কথা বলে, আমরা সংখ্যায় বেশী হলেও, সে একজনও যদি হয়, তার ন্যায্য কথা আমরা মেনে নেবো
– বঙ্গবন্ধু  

ভুলে যেয়ো না। স্বাধীনতা পেয়েছো এক রকম শত্রুর সাথে লড়াই করে। তখন আমরা জানতাম আমাদের এক নম্বর শত্রু পাকিস্থানের সামরিক বাহিনী ও শোষকগোষ্ঠী। কিন্তু, এখন শত্রুকে চেনাই কষ্টকর।-বঙ্গবন্ধু

সাত কোটি বাঙ্গালির ভালোবাসার কাঙ্গাল আমি। আমি সব হারাতে পারি, কিন্তু বাংলাদেশের মানুষের ভালোবাসা হারাতে পারব না। 
-বঙ্গবন্ধু 

যিনি যেখানে রয়েছেন, তিনি সেখানে আপন কর্তব্য পালন করলে দেশের মধ্যে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হতে পারে না।
-বঙ্গবন্ধু 

সমস্ত সরকারী কর্মচারীকেই আমি অনুরোধ করি, যাদের অর্থে আমাদের সংসার চলে তাদের সেবা করুন।
-বঙ্গবন্ধু 

যে মানুষ মৃত্যুর জন্য প্রস্তত, কেউ তাকে মারতে পারে না।
-বঙ্গবন্ধু  

বাংলার মাটিতে যুদ্ধাপরাধীর বিচার হবেই।
-বঙ্গবন্ধু   

এই স্বাধীনতা তখনি আমার কাছে প্রকৃত স্বাধীনতা হয়ে উঠবে, যেদিন বাংলার কৃষক-মজুর ও দুঃখী মানুষের সকল দুঃখের অবসান হবে
– বঙ্গবন্ধু  

আমার সবচেয়ে বড় শক্তি আমার দেশের মানুষকে ভালবাসি, সবচেয়ে বড় দূর্বলতা আমি তাদেরকে খুব বেশী ভালবাসি।
– বঙ্গবন্ধু   

বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে উক্তি  

অনেক লেখক ও কবি দেশকে ভালোবাসেন। এর পাশা-পাশি বঙ্গবন্ধুকে তারা অনেক ভালোবাসেন। তারা বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে অনেক উক্তি লিখেছেন। এখানে আমি তাদের উক্তি গুলো থেকে শ্রেষ্ঠ কিছু বঙ্গবন্ধু নিয়ে উক্তি শেয়ার করেছি। এগুলো আপনাদের অনেক ভালোলাগবে, দেশপ্রেম নিয়ে বঙ্গবন্ধুর উক্তি  গুলো দেখেনিন। 

  • “শেখ মুজিব একজন শান্তির মানুষ, একজন স্বাধীনতার মানুষ এবং একজন বিশ্বমানব। তিনি শুধু বঙ্গবন্ধু (বাংলাদেশের বন্ধু) নন, তিনি বিশ্ববন্ধুও (বিশ্ববন্ধু)। —রমেশ চন্দ্র, বিশ্ব শান্তি পরিষদের সাবেক মহাসচিব 
  • “আমি হিমালয় দেখিনি। কিন্তু শেখ মুজিবকে দেখেছি। ব্যক্তিত্বে ও সাহসিকতায় এই মানুষটি হিমালয়। আমি এইভাবে হিমালয় প্রত্যক্ষ করার অভিজ্ঞতা পেয়েছি।”
    -কিউবার নেতা ফিদেল কাস্ত্রো
  • বঙ্গবন্ধুর হত্যাকান্ডে বাঙলাদেশই শুধু এতিম হয় নি বিশ্ববাসী হারিয়েছে একজন মহান সন্তানকে
    – জেমসলামন্ড
  • “যতদিন বহমান থাকবে পদ্মা, মেঘনা, গৌরী, যমুনা, ততদিন বহমান থাকবে শেখ মুজিবুর রহমান”
    —কবি অন্নদা শঙ্কর রায়।
  • “ধন্য সেই মানুষ যার নামে স্বাধীনতাকে ফুঁকছে পতাকার মত,
    ধন্য সেই মানুষ যার নামের উপর বর্ষণ হয় মুক্তিযোদ্ধাদের শ্রদ্ধা নিবেদন।
    -কবি শামসুর রাহমান।
  • বঙ্গবন্ধু সর্বকালের সাহসী নেতা।
    – প্রণব মুখার্জি
    শেখ মুজিবুর রহমান ভিয়েতনামী জনগনকে অনুপ্রাণিত করেছিলেন
    – কেনেথা কাউণ্ডা
  • বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হচ্ছেন সমাজতন্ত্র প্রতীষ্ঠার সংগ্রামের প্রথম শহীদ। তাই তিনি অমর।
    – সাদ্দাম হোসেন
  • শেখ মুজিবুর রহমান ভিয়েতনামী জনগনকে অনুপ্রাণিত করেছিলেন।
    – কেনেথা কাউণ্ডা
  • বঙ্গবন্ধুর সাতই মার্চের ভাষণ ঐতিহাসিক দলিল
    – ইউনেসকো
  • দিকে দিকে আজ অশ্রম্নুগঙ্গা রক্তগঙ্গা বহমান নাই নাই ভয় হবে হবে জয় জয় মুজিবুর রহমান।
    -অন্নদাশঙ্কর রায়
  • মুজিব না থাকলে বাংলাদেশ কখনই জন্ম নিতনা
    -ফিনান্সিয়াল টাইমস

দেশপ্রেম নিয়ে বঙ্গবন্ধুর বাণী

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান দেশ কে নিয়ে কিছু বাণী উল্লেখ করেছেন। তার সেই বাণী গুলো এখানে শেয়ার করেছি। দেশপ্রেম সম্পর্কে বঙ্গবন্ধুর এই বাণী গুলো পড়লে আপনারা দেশের প্রতি ভালোবাসা নিয়ে অনেক অনুপ্রেরণা পাবেন। এখান থেকে বানী গুলো পড়ে নিন।

  1. প্রধানমন্ত্রী হবার কোন ইচ্ছা আমার নেই। প্রধানমন্ত্রী আসে এবং যায়। কিন্তু, যে ভালোবাসা ও সম্মান দেশবাসী আমাকে দিয়েছেন, তা আমি সারাজীবন মনে রাখবো।
  2. এদেশে কৃষক-শ্রমিক, হিন্দু-মুসলমান সবাই সুখে থাকবে, শান্তিতে থাকবে।
  3. অযোগ্য নেতৃত্ব, নীতিহীন নেতা ও কাপুরুষ রাজনীতিবিদদের সাথে কোন দিন একসাথে হয়ে দেশের কাজে নামতে নেই। তাতে দেশসেবার চেয়ে দেশের ও জনগণের সর্বনাশই বেশি হয়।
  4. যখন তুমি কোন ভদ্রলোকের সাথে খেলবে তখন তোমাকে ভদ্রলোক হতে হবে, যখন তুমি কোন বেজন্মার সাথে খেলবে তখন অবশ্যই তোমাকে তার চাইতে বড় বেজন্মা হতে হবে। নচেত পরাজয় নিশ্চিত।
  5. ভিক্ষুক জাতির ইজ্জত থাকে না। বিদেশ থেকে ভিক্ষা করে এনে দেশকে গড়া যাবে না। দেশের মধ্যেই পয়সা করতে হবে।
  6. গরীবের উপর অত্যাচার করলে আল্লাহর কাছে তার জবাব দিতে হবে।
  7. যদি কেউ ন্যায্য কথা বলে, আমরা সংখ্যায় বেশী হলেও, সে একজনও যদি হয়, তার ন্যায্য কথা আমরা মেনে নেবো। 
  8. বাংলার মুখ আমি দেখিয়াছি, তাই আমি পৃথিবীর রূপ খুঁজিতে যাই না আর। 
  9. ‘জয় বাংলা’ বলতে মনরে আমার এখনো কেন ভাবো, আমার হারানো বাংলাকে আবার তো ফিরে পাবো, অন্ধকারে পুবাকাশে উঠবে আবার দিনমণি। 

দেশপ্রেম নিয়ে স্ট্যাটাস

নিচে দেশপ্রেম নিয়ে কিছু স্ট্যাটাস দেওয়া আছে। এগুলো আপনারা ফেসবুকে বা সোশ্যাল মিডিয়াতে পোস্ট করতে পারবেন। দেশের প্রকৃতি নিয়ে ছবি পোস্ট করতে এই স্ট্যাটাস বা ক্যাপশন গুলো ব্যবহার করতে পারবেন। আপনার পছন্দের স্ট্যাটাস টি নিচে থেকে সংগ্রহ করে নিন।  

আমরা এই দেশে গণতন্ত্র রাখতে পারি অথবা কয়েকজনের হাতে প্রচুর পরিমাণে সম্পদ রাখতে পারি, কিন্তু দুটোই একসাথে থাকতে পারে না
-লুই ডি ব্র্যান্ডি 

পৃথিবী আমার দেশ, সমস্ত মানবজাতি আমার ভাই এবং ভাল কাজ করা আমার ধর্ম
-টমাস পেইন 

আমাদের দেশের প্রতি আমাদের দায়িত্ববোধ , আমাদের জীবন দিয়ে শেষ করা যায় না
-জন অ্যাডামস

এই জাতি যতদিন স্বাধীনতার টিকে থাকবে ততদিন বৃদ্ধের আবাস টিকে থাকবে। 

কী দিয়ে মুছবে বলো আগুনের জল ”
-হেলাল হাফিজ

দেশ থেকে সর্ব প্রকার অন্যায়, অবিচার ও শোষণ উচ্ছেদ করার জন্য দরকার হলে আমি আমার জীবনও উৎসর্গ করব।

বিশ্ব দুই শিবিরে বিভক্ত – শোষক আর শোষিত। আমি শোষিতের পক্ষে।

একজন দেশ প্রেমিক দেশকে রক্ষার জন্য যেকোনো শত্রু মোকাবেলা করতে পারে। 

মানুষকে ভালোবাসলে মানুষও ভালোবাসে। যদি সামান্য ত্যাগ স্বীকার করেন, তবে জনসাধারণ আপনার জন্য জীবনও দিতে পারে।

বাংলাদেশ এসেছে বাংলাদেশ থাকবে।

বাঙালি – অবাঙালি, হিন্দু – মুসলমান সবাই আমাদের ভাই, তাদের রক্ষা করার দায়িত্ব আমাদের।

ভয় নাই, কোনো ভয় নাই। আমি আছি। দুর্নীতিবাজদের খতম করো, বাংলাদেশের দুঃখী মানুষের দুঃখ মোচন করো।

দেশপ্রেম নিয়ে কবিতা

অনেক কবি দেশকে ভালোবাসেন এবং তারা দেশকে নিয়ে কবিতা লেখেন। দেশকে নিয়ে, দেশের মানুষকে নিয়ে এবং দেশের প্রকৃতি নিয়ে বহু কবি শত শত কবিতা, গল্প ও উপন্যাস লিখেছেন। এখানে আমি বিভিন্ন কবিদের লেখা কবিতা থেকে দেশপ্রেম নিয়ে সুন্দর সুন্দর কবিতা সংগ্রহ করে দিয়েছি। আশা করছি কবিতা গুলো আপনাদের অনেক ভালোলাগবে। কবিতা গুলো নিচে থেকে পড়ে নিন অথবা সংগ্রহ করে রাখুন। 

কবিতা ১ঃ 

দেশপ্রেম  
সুকন্যা সাহা

ছেলেবেলার ইতিহাসকে একটু জাগালে
মনে পরে যায় স্বাধীনতা সংগ্রামী মানুষদের কথা।
আমি বইয়ে পড়েছি, মুখে শুনেছি
দেশকে ভালবেসেছেন মহান ব্যক্তিরা।

যেই মাটিতে জন্ম, যেই গাছের হাওয়ায় শান্তি
সেই দেশকে আমি ভালোবাসি।
যদি কেউ একজন দেশের জন্য ভাবে,
কেউ দেশের জন্য অনেক স্বপ্ন দেখে, 

যদি কেউ ছোট বড় অন্যায়ের প্রতিবাদ জানায়,
তবেই সে একজন দেশপ্রেমিক।
দেশের বাইরে নয়, দেশের মাঝেই আমি
আমার দেশকে জানতে চাই।

হাজার মানুষের কল্যাণ চাওয়া কি দেশপ্রেম নয়?
মানুষের মাঝে মানবিক চেতনার সঞ্চার দি দেশপ্রেম নয়?
সেই সব মানুষ শুধু এক ফোঁটা জলের জন্য
মাটিতে শুয়ে ধূ-ধূ মরুভূমির দিকে তাকানো,

আমি তাদের জন্য অনন্ত জলের স্রোত
এনে দিতে চাই, দিতে চাই তাদের মুখে একফোঁটা হাসি।
আমি গর্বিত আমি এদেশের একজন,
আমি গর্বিত আমি ভারতীয়।

কবিতা ২ঃ 

সুদূরে মিলায় সবুজ ফসলের মাঠখানি
সবুজ আর সোনালী মিশে একাকার
মন যে সুদূরে নিল টানি;

পশ্চিমা সূর্যের কিরণে ঝিকমিক
সোনালী ফসলের মাঠ, সোনা রোদের ঝিলিক
স্নিগ্ধতায়, মুগ্ধতায় দুচোখ খুশিতে চিকমিক ।

পাখিরা করে কলরব, গাছের শাখে শাখে
ঝির ঝির হাওয়া বয়, পথিক ঝিরোয় ছায়ায়
ফেরিওয়ালা হাক পাড়ে ওই পথের বাঁকে ।

কুয়াশার চাদর বিছায়েছে দেখ কচি ঘাসের মাথায়
শিউলীরা ভালবেসে শিশিরের গায়ে দেয় চুম্বন
আহ! ফুলের আঘাতে গলে গেল শিশির ব্যথায় ।

টুপটাপ টুপটাপ শিশির ফোটা টিনের চালে
বহে হিমেল বায়; মনোরম আবেশ
যেন প্রকৃতি গান গায় তালে তালে ।

রাতের জোছনা ঝরা আকাশে
মিলি, তারা আর জোনাকীদের সাথে
প্রাণ ভরে নি:শ্বাস নেই উন্মুক্ত বাতাসে ।

আমার প্রিয় বাংলাদেশ
হাজার স্বপ্ন দিয়ে সাজাই তারে
স্বপ্নের তো আর নেইকো শেষ ।

ঋতু বৈচিত্রের সুন্দর জন্মভূমি আমার
বিচিত্র রূপ তার; শস্য শ্যামল ক্ষেত খামার
প্রিয় জন্মভূমি মা তোমায় ভালবাসি বেশুমার ।

শেষ কথা 

আমাদের সবাইকে দেশপ্রেমে একতাবোধ হতে হবে। দেশের উন্নয়নে কাজ করতে হবে। দেশকে সবসময় শত্রু মুক্ত রাখতে হবে। তাহলে আমরা দেশপ্রেমে সাফল্য লাভ করতে পারবো। মনে রাখতে হবে এই আমার, তোমার এবং সকল জাতির এক চেতনা। দেশকে ভালোবাসার পাশা-পাশী দেশের মানুষকে ভালবাসতে হবে। উপরের অংশে দেশপ্রেম নিয়ে বঙ্গবন্ধুর উক্তি দিয়েছি। আশা করছি এই উক্তি গুলো পড়ে বঙ্গবন্ধু যেভাবে দেশকে ভালোবাসতেন এবং মানুষকে ভালবাসতে শিখিয়েছেন সেগুলো জানতে পেরেছেন। আজকে মতো এখানেই শেষ। ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন। ধন্যবাদ।  

আরও দেখুনঃ 

মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য, ভাষণ ও উপস্থাপনা – PDF

১৭ই মার্চের কবিতা – ছোটদের শিশু দিবসের কবিতা ২০২৩

১৭ই মার্চ কি দিবস? । জাতীয় শিশু দিবস কবে ২০২৩?

Similar Posts